আজ শনিবার| ৬ই জুন, ২০২০ ইং| ২৩শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
আজ শনিবার | ৬ই জুন, ২০২০ ইং

চলতি মুজিব বর্ষের মধ্যেই পুরো শরীয়তপুরকে শতভাগ বিদ্যুতের আওতায় আনা হবে: পানিসম্পদ উপমন্ত্রী

শনিবার, ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০ | ১১:৪৫ অপরাহ্ণ | 181 বার

চলতি মুজিব বর্ষের মধ্যেই পুরো শরীয়তপুরকে শতভাগ বিদ্যুতের আওতায় আনা হবে: পানিসম্পদ উপমন্ত্রী

নড়িয়া (শরীয়তপুর) প্রতিনিধি: চলতি মুজিব বর্ষের মধ্যেই পুরো শরীয়তপুরকে শতভাগ বিদ্যুতের আওতায় আনা হবে বলে জানিয়েছেন পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এনামুল হক শামীম। দুপুরে, শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলার চরআত্রায় সাবমেরিন ক্যাবলের মাধ্যমে এক হাজার পরিবারের মধ্যে বিদ্যুৎ সংযোজনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

এর আগে, শরীয়তপুরের নওপাড়া ভূমি অফিস উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে, এনামূল হক শামীম-মাদক বিক্রেতা এবং সেবনকারীর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার হুঁশিয়ারি দেন। পরে নওপাড়ায় মুন্সী আজিজুল হক উচ্চ বিদ্যালয়ের অনুষ্ঠানিক নামকরণের নামফলক উন্মোচন, চরআত্রা থেকে নওপাড়া পর্যন্ত মুন্সি আলিমুজ্জামান রতন সড়কের কাজের উদ্বোধন ও চরআত্রা স্কুল অ্যান্ড কলেজের কলেজ শাখার উদ্বোধনও করেন তিনি।

এর পরে তিনি চরআত্রা আজিজিয়া স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে এক সুধী সমাবেশে যোগ দেন এবং এই স্কুল মাঠেই তিনি সাবমেরিন ক্যাবলের মাধ্যমে নতুন বিদ্যুৎ সংযোগের শুভ উদ্বোধন করেন।

শরীয়তপুরের জেলা প্রশাসক কাজী আবু তাহের এর সভাত্ত্বিতে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপত ও জেলা পরিষেদের চেয়ারম্যান ছাবেদুর রহমান খোকা শিকদার, পুলিশ সুপার এস এম আশ্রাফুজ্জামান, জেলা আ.লীগের সাধরণ সম্পাদক অনল কুমার দে, বাংলাদেশ পল্লি বিদ্যুতায়ন বোর্ডের তত্বাবধায়ক মো: জয়নাল আবেদীন, উপজেলা আ.লীগের সভাপতি হাচান আলী রাড়ী, সাধারণ সম্পাদক হাসানুজ্জামান খোকন, যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক ও নড়িয়া পৌরসভার মেয়র মো: শহিদুল ইসলাম বাবু রাড়ী, মোক্তারের চর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ.লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম চৌকিদার স্থানীয় আওয়ামীলীগের বিভিন্ন নেতৃবৃন্দ সহ গন্যমান্য ব্যাক্তি বর্গ।

শরীয়তপুর জেলায় পদ্মা বেষ্টিত নড়িয়া, জাজিরা ও ভেদরগঞ্জ উপজেলার দূর্গম পদ্মার চরে অবস্থিত ৪টি ইউনিয়নে সাবমেরিন ক্যাবলের মাধ্যমে নদীর তলদেশ দিয়ে আনা হলো বিদ্যুৎ! বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত এখন শরীয়তপুর থেকে বিচ্ছিন্ন চরাঞ্চল। প্রায় দু-শ বছরের পুরানো এই চরে পৌচেছে বিদ্যুৎ সেই আনন্দে আনন্দিত হয়ে নানা সাজে সাজানো হয়েছে পুরো চরাঞ্চলকে। এছাড়াও উৎসাহ উদ্দীপনায় উৎসবের আমেজে মেতেছেন এসব এলাকার মানুষগুলো। কোন কিছুরই যেন কমতি ছিলনা এখানে। শত কষ্ট এবং শত ব্যাস্ততার মাঝেও দেশ বিদেশ ও ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা সবাই ছুটে এসেছেন, এই আনন্দের সুখটুকু ভাগা-ভাগি করে নিতে।

নওপাড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সোহেল মুন্সী বলেন, আমাদের নওপাড়া-চরআত্রার কৃতি সন্তান পানিসম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম যদি এমপি-মন্ত্রী না হতেন তাহলে কিয়ামত পর্যন্ত হয়তো আমাদের চরাঞ্চলে বিদ্যুতের ব্যাবস্থা হতো না। তাই আমাদের মন্ত্রী মহোদয়ের জন্য দোয়া করি এবং মহান আল্লাহ্ তায়ালার কাছে শুকরিয়া জানাই। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ও অনেক অনেক ধন্যবাদ জানাই কারন এনামুল হক শামীমের ঐক্লান্তিক প্রচেষ্টায় আজ আমরা বিদ্যুৎ পেয়েছি। এছাড়াও তিনি চরআত্রা-নওপাড়াকে ঢেলে সাজাতে বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নিয়েছেন। আজকেও তিনি একটি স্কুলের নামকরন, আরেকটি স্কুলকে কলেজে রুপান্তর, ইউনিয়ন ভূমি অফিস সহ চরআত্রা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম আলিমুজ্জামান রতন মুন্সীর নামে চরআত্রা থেকে নওপাড়া পর্যন্ত সড়কের উদ্বোধন করেন। এর আগে তিনি আমাদের এই চরআত্রা-নওপাড়াকে নদী ভাঙণের হাত থেকে রক্ষা করতে বেড়িবাধের কাজ শুরু করেছেন। তাই আমরা চরাঞ্চলের মানুষ তার কাছে চিরঋণি।

পানিসম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম এমপি বলেন, এই নওপাড়া-চরআত্রার মানুষ যা স্বপ্নেও ভাবেনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তা দেখিয়ে দিয়েছে। আজ আমরা সাবমেরিন ক্যাবলের মাধ্যমে বিদ্যুতের উদ্বোধন করে ১ হাজার পরিবারকে বিদ্যুৎ দিলাম। পর্যাক্রমে প্রতিটি ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে দিতে পারবো ইনশাহ আল্লাহ্। এছাড়াও আগামী মার্চ মাসের মধ্যেই নির্মাণাধীন সাব-ষ্ট্যাশন উদ্বোধন করতে পারব এবং এই নওপাড়া-চরআত্রা ইউনিয়নে আর কখনও বিদ্যুৎ যাবে না।

শেয়ার করুন-Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Print this page
Print

সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  
ফেইসবুক পাতা

error: Content is protected !!