আজ রবিবার| ৫ই জুলাই, ২০২০ ইং| ২১শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
আজ রবিবার | ৫ই জুলাই, ২০২০ ইং

মাস্ক পড়তে বলায় শরীয়তপুরে ইউপি চেয়ারম্যান সহ পরিবারের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

সোমবার, ০১ জুন ২০২০ | ৩:০৮ অপরাহ্ণ | 212 বার

মাস্ক পড়তে বলায় শরীয়তপুরে ইউপি চেয়ারম্যান সহ পরিবারের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

শরীয়তপুর প্রতিনিধি: মুখে মাস্ক পরাকে কেন্দ্র করে শরীয়তপুরের ডামুড্যা উপজেলার সিড্যা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানসহ তার পরিবারের চারজনকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করার ঘটনায় মামলার আসামীদের গ্রেফতারের দাবীতে মানববন্ধন করে ওই ইউনিয়ন যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, ছাত্রলীগ, ভুক্তভোগী পরিবার ও এলাকাবাসী। এ সময় ডামুড্যা থানা পুলিশ মানববন্ধন পন্ড করে দেয়। সোমবার (০১ জুন) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে সিড্যা আমিন বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

সিড্যা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের ছেলে আজিজুর রহমান রাব্বি আমিন বলেন, আমি সিড্যা আমিন বাজার ও এলাকায় করোনা প্রতিরোধে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে মাইকিং ও মাস্ক পরতে বলি। কিন্তু আমাদের পাশের গ্রামের গিয়াস উদ্দিন ঢালী আমিন বাজারে কলা বিক্রি করতে আসলে মাস্ক না পরায় তাকে জিজ্ঞেস করি আপনার মাস্ক কোথায়? আপনি মাস্ক পরেন নাই কেন? বলার সঙ্গে সঙ্গে আমাকে বকা দেন গিয়াস উদ্দিন। আবার রাতে গিয়াস উদ্দিন ঢালী (৬০) ক্ষিপ্ত হয়ে তার ভাই আনিছুদ্দিন ঢালী (৭০), বিল্লাল ঢালী (৫৫), বাসার ঢালীসহ (৫২)সহ ৩০/৪০জন সন্ত্রাসী লোক নিয়ে আমাদের বাড়িতে হামলা চালায়। আমার বাবা, মামাসহ চারজনকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে আহত করে। আমাদের ঘর কোপায় ও লুট করে। পরে আমরা মামলা করি। কিন্তু মামলার আসামীদের গ্রেফতার করছেন না পুলিশ। আসামীদের গ্রেফতারের দাবীতে মানববন্ধন করতে গেলে বাধার মুখে পড়ি।

ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলাউদ্দিন আমিন বলেন, গত ২৭ এপ্রিল আমাদের ওপর সন্ত্রাসীরা হামলা করে আহত করে। ২৯ এপ্রিল আমি থানায় মামলা করলেও এখন পর্যন্ত আসামী গ্রেফতার না হওয়ায় আমি ও আমার পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। আজ আসামী দ্রæত গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন করতে গেলে পুলিশের বাধার মুখে পড়ি। সরকার ও পুলিশ প্রশানের কাছে জোর দাবি আসামীদের দ্রæত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে বিচারের সম্মখিন করা হোক।

ডামুড্যা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মেহেদী হাসান বলেন, এখন করোনা মহামারি চলছে। তার ভিতর সিড্যা আমিন বাজার এলাকায় ব্যাপক আকারে মানববন্ধন চলছিল শুনে ঘটনাস্থলে আসি। আমরা আসার আগে মানববন্ধনে আসা লোকজন পালিয়েছে। তিনি বলেন, আসামীরা ভেদরগঞ্জ থানা এলাকায়। তবুও আসামীদের ধরতে কয়েকবার অভিযান চালিয়েছি। আমাদের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। খুব শিগ্রই আসামীদের আইনের আওতায় আনা হবে।

ডামুড্যা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, করোনা মহামারির ভিতর গণজামায়েত, জনসভা, সাধারণ সভা, মিটিং, মিছিল নিষিদ্ধ করেছে সরকার। আমরা সংবাদ পাই সিড্যা আমিন বাজারে মানববন্ধন হচ্ছে। ঘটনাস্থলে গিয়ে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে পাঁচজনকে ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত (২৭ এপ্রিল) সোমবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ভেদরগঞ্জ উপজেলার মহিষার ইউনিয়নের কাইচকুড়ি গ্রামের গিয়াস উদ্দিন ঢালী ডামুড্যা উপজেলার সিড্যা আমিন বাজারে কলা বিক্রি করতে আসেন। তখন মাস্ক পড়াকে কেন্দ্র করে ইউপি চেয়ারম্যানের ছেলে আজিজুর রহমান রাব্বি আমিন ও প্রতিবেশি গিয়াস উদ্দিন ঢালীর সঙ্গে বাগবিতÐা হয়। পরে গিয়াস উদ্দিন ঢালী তার লোকজন নিয়ে চেয়ারম্যানের বাড়িতে হামলা চালিয়ে সিড্যা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলাউদ্দিন আমিন (৬৯), তার স্ত্রী মমতাজ বেগম (৬০), ছেলে আজিজুর রহমান রাব্বি আমিন (৩২) ও ভাতিজা চৈতন আমিনকে (১৮) কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করে। এ ঘটনায় গত ২৯ এপ্রিল ৩২ জনকে আসামী করে ডামুড্যা থানায় একটি মামলা করেন চেয়ারম্যান।

শেয়ার করুন-Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin
Print this page
Print

সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  
ফেইসবুক পাতা

error: Content is protected !!