ঢাকা, শনিবার, ২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ঢাকা, শনিবার, ২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ক্লাস বাদ দিয়ে শিক্ষার্থীদের নিয়ে ভূমি সেবা সপ্তাহ পালন

জামালপুরের মেলান্দহ উপজেলায় ক্লাস বাদ দিয়ে ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদেরকে ডেকে এনে ‘ভূমি সেবা সপ্তাহ-২০২৩’ উদযাপন করার অভিযোগ উঠেছে উপজেলা প্রশাসনের বিরুদ্ধে। অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থী ছাড়া কোনো সেবা গ্রহীতাকে দেখা যায়নি।

সোমবার (২২ মে) দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে উপজেলা ভূমি অফিসের পাশে ভূমি সেবা সপ্তাহ উপলক্ষ্যে বানানো স্টলে ফিতা কেটে আনুষ্ঠানিকভাবে ভূমি সেবা সপ্তাহ-২০২৩ উদ্বোধন করা হয়। পরে মির্জা আজম অডিটরিয়ামে ভূমি সেবা সপ্তাহ নিয়ে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

 

জানা যায়, সেই সভায় উপজেলার রাবেয়া ইসলাম আদর্শ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ইংরেজি ১ম পত্র ক্লাস বাদ দিয়ে ভূমি সেবা সপ্তাহ অনুষ্ঠানে উপজেলা প্রশাসন ডেকে নিয়ে যায়।

সোমবার দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে উপজেলা ভূমি অফিসের পশ্চিম পাশে ভূমি সেবা সপ্তাহের স্টলের সামনে দেখা যায়, স্কুলের পোশাক পড়া শিক্ষার্থীরা ভিড় করছে। স্টলের একপাশে ছাত্রী অন্য পাশে ছাত্ররা ভিড় করে দাঁড়িয়ে আছে। পরে ৩টা ৪৫ মিনিটের দিকে স্টলে ফিতা কেটে আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সেলিম মিঞা, উপজেলার পরিষদের চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) জোহরা সুলতানা যুর্থীসহ কয়েকজন।

 

পরে মির্জা আজম অডিটরিয়ামে ভূমি সেবা সপ্তাহ নিয়ে আলোচনা সভা শুরু হয়। আলোচনা সভায় শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করেন। আলোচনা সভা সাড়ে চারটারদিকে শেষ হয়।

অনুষ্ঠান শুরুর আগে কয়েকজন শিক্ষার্থী বলেন, এখানে কি প্রোগ্রাম হবে আমরা জানি না। আমাদেরকে স্যারেরা পাঠিয়ে দিয়েছে, আমরা এসেছি। এ সময় আমাদের ইংরেজি ক্লাস হতো।

রাবেয়া ইসলাম আদর্শ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মাসুদুর রহমান বলেন, আমাকে উপজেলা একাডেমি সুপারভাইজার আশরাফুল ফোন দিয়ে ভূমি সেবা সপ্তাহে ৫০ জন শিক্ষার্থী নিয়ে উপজেলায় নিয়ে যেতে বলেন। পরে ক্লাস বন্ধ রেখে শিক্ষার্থীরা এক ঘণ্টা সেখানে থেকে চলে এসেছে।

অ্যাকাডেমি সুপারভাইজার আশরাফুল আলম বলেন, ভূমি সেবা সপ্তাহে শিক্ষার্থীদের আসার জন্য (ইউএনও) স্যার বলেছিল। তাই ওই স্কুলের স্যারকে শিক্ষার্থীদের নিয়ে আসার কথা বলেছিলাম।

এই বিষয়ে জানতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সেলিম মিঞা বলেন, এখন এসএসসি পরীক্ষা চলছে। ভূমি সেবা শিক্ষামূলক। আর স্কুল তো বন্ধ। এটাতো অনেকটা ক্লাসের মতোই ছিল। ভূমি সেবা সম্পর্কে শিক্ষার্থীরা জানল।

এই বিষয়ে জামালপুরের জেলা প্রশাসক শ্রাবস্তী রায় বলেন, এটি জনসচেতনতামূলক সভা। এখানে সকল শ্রেণি পেশার মানুষ থাকতে পারে। এখন এসএসসি পরীক্ষা চলছে এমনিতেই ক্লাস চলছে না।  এ বিষয়ে আমার বক্তব্য দেওয়ার সুযোগ নেই, ওখানে কি বলেছে না বলেছে। আপনি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সঙ্গে কথা বলেন। এটি জনসচেতনতামূলক সভা, সব শ্রেণির মানুষকে অন্তর্ভুক্ত করার নির্দেশনা দেওয়া আছে।


error: Content is protected !!