ঢাকা, বুধবার, ১২ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২৯শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
ঢাকা, বুধবার, ১২ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ২৯শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

কঠোর লকডাউনে এবার পশ্চিমবঙ্গ

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে বাংলাদেশে কঠোর লকডাউন চলমান। এবার প্রতিবেশী দেশ ভারতের অঙ্গরাজ্য পশ্চিমবঙ্গও কঠোর লকডাউন দিয়েছে।

শুক্রবার (৩০ এপ্রিল) কঠোর লকডাউন আরোপ করে একটি নির্দেশনা জারি করেছে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার। শুক্রবার সন্ধ্যা থেকেই কঠোর লকডাউন কার্যকর করা হয়।

ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে তুলে ধরা হয়েছে, ভারতের অন্য রাজ্যগুলোর মতো পশ্বিমবঙ্গে করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে। এ কারণে তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পশ্চিমবঙ্গে বিধানসভা নির্বাচন শেষ হওয়ার পরদিন করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে কঠোর লকডাউন দিয়েছে।

পশ্চিমবঙ্গের রাজ্য সরকারের দেওয়া নির্দেশনায় বলা হয়েছে, পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত সিনেমা হল, শপিং মল, বিউটি পারলার, হোটেল-রেস্টুরেন্ট, ক্রীড়াঙ্গন, ব্যায়ামাগার, স্পা সেন্টার, সুইমিংপুল বন্ধ রাখতে হবে।

পশ্চিমবঙ্গের মানুষ প্রতিদিন সকাল ৭টা থেকে ১০টা ও বেলা ৩টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত বাজার করার সময় পাবেন। দিনের বাকি সময় দোকানপাট বন্ধ থাকবে। তবে নিত্যপণ্যের হোম ডেলিভারি সেবা, ওষুধ, চিকিৎসাসামগ্রী ও মুদির দোকান বিধিনিষেধের আওতার বাইরে থাকবে। সব ধরনের সামাজিক, সাংস্কৃতিক, শিক্ষা ও বিনোদনমূলক অনুষ্ঠান আয়োজন পুরোপুরি বন্ধ রাখতে বলা হয়েছে। এসব নির্দেশনা না মানলে প্রশাসন কড়া ব্যবস্থা নেবে।

প্রসঙ্গত, পশ্চিমবঙ্গে গত ২৪ ঘণ্টায় ৮৯ জন করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। একই সময়ে করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন ১৭ হাজার ৪০৩ জনের শরীরে।


error: Content is protected !!