ঢাকা, শুক্রবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
ঢাকা, শুক্রবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

Notice: Use of undefined constant php - assumed 'php' in /home/bhorerso/public_html/wp-content/themes/newsportal/lib/part/top-part.php on line 49

কোটচাঁদপুর ইউপি নির্বাচনে আঃলীগ নেতার হুঙ্কার, বিরোধী পক্ষ কেউ যেন ভোট চাইতে না পারে!

জাহিদুর রহমান তারিক, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর উপজেলার ইউনিয়ন নির্বাচনে আওয়ামী লীগের এক ইউনিয়ন সভাপতির হুঙ্কার বিরোধী পক্ষ কেউ যেন ভোট চেতে না পারে। এমন একটি ভিডিও সোসাল মিডিয়া ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে উপজেলার সকল ইউনিয়নের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও সাধারণ ভোটাদের মাঝে চরম ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। সেই সাথে ভোটাদের মাঝে ভীতি দানা বাঁধতে শুরু করেছে।

 

ভিডিওতে দেখা যায় উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দের উপস্থিতিতে কুশনা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হোসেন আবু বলেন, আমি শুনতে পেরেছি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের অনেকেই প্রচার করছেন আমি নৌকা মার্কার প্রার্থীর কাজ থেকে টাকা খেয়েছি। তাই তারা বলছেন একাই আমাকে নৌকার ভোট করতে হবে। আমি বলতে চাই, আমি টাকা খেলে ৪/৫ লাখ টাকা খেতে পারতাম। কিন্তু আমি দালাল হয়ে যাব বিধায় আমি টাকা খায় নাই। তিনি বলেন সকলকে নৌকাই আসতে হবে। তিনি হুঙ্কার ছেড়ে এলাকার নেতা কর্মিদের নির্দেশ দেন আগামীকাল থেকে নৌকার বিরুদ্ধে কেউ যেন ভোট চেতে না পারে।

 

আর ভোট চেতে আসলে তার প্রতিহত করতে হবে। কুশনা ইউনিয়নের মটর সাইকেল মার্কা (আঃলীগ বিদ্রোহী) প্রার্থী গোলাম কিবরিয়া বিপ্লব ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন-বিগত দিনের অভিজ্ঞতায় ভোটাররা একেই ভোট কেন্দ্রে যেতে চাই না। আমরা ভোটারদের ভোট কেন্দ্রে যাওয়ার উৎসাহ যোগানোর চেষ্টা করছি। সেখানে একজন নেতার এমন হুঙ্কারে ভোটাদের মধ্যে আবারো চরম ভীতি দানা বাঁধতে শুরু করেছে। ওই ইউনিয়নের চশমা মার্কার স্বতন্ত্র প্রার্থী শাহারুজ্জামান সবুজ বলেন, শান্ত পরিবেশ অশান্ত করার পায়তারা চলছে। ভোটে হারজিত থাকবে।

 

জোর করে ভোটাদের কাছ থেকে ভোট নেয়া যায় না এটা সকলের মাথায় রাখা উচিৎ। আনারস মার্কার (আঃলীগ বিদ্রোহী) প্রার্থী আবদুর রশিদ বলেন-নৌকা মার্কার প্রার্থী আবদুল হান্নান পরাজিত হবে জেনে নেতারা এমন কথাবার্তা বলে পরিবেশ নষ্ট করছে। এমন হুঙ্কারে তিনি চরম ভাবে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। বিষয়টি নিয়ে সিনিয়র জেলা নির্বাচন অফিসার বলেন, অবশ্য আমি ভিডিওটি দেখিনি, যদি এমন বক্তব্য হয়ে থাকে তাহলে দয়িত্বপ্রাপ্ত ইউনিয়ন রির্টানিং অফিসারের নিকট ভিডিওটি সহ লিখিত ভাবে অভিযোগ করলে তিনি ব্যবস্থা নিবেন।

 

বিষয়টি নিয়ে বক্তব্য জানার জন্য ওই ইউনিয়নের দায়িত্ব প্রাপ্ত রির্টানিং অফিসার (উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার) জহুরুল ইসলামকে একাধিক বার মোবাইলে যোগাযোগ করলেও তিনি মোবাইল ধরেননি। উল্লেখ্য আগামী ২৮ নভেম্বর তৃতীয় ধাপের নির্বাচনে কোটচাঁদপুর উপজেলার ইউনিয়ন গুলির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।


error: Content is protected !!