ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

স্কুলে যাওয়ার পথে বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেল শিক্ষিকার

  • 2Words
  • Views

চাঁদপুরে সিএনজিচালিত অটোরকিশায় বাসের ধাক্কায় নাজমা বেগম (৫৫) নামে এক স্কুলশিক্ষিকা নিহত হয়েছেন। সোমবার (২১ নভেম্বর) সকাল ১০টার দিকে চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কের চাঁদপুর সদর উপজেলার ঘোষেরহাট এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত নাজমা আক্তার শহরের বিষ্ণুদী রোড এলাকার মৃত ফারুক আলমের স্ত্রী। তার গ্রামের বাড়ি সদর উপজেলার শাহমাহমুদপুর ইউনিয়নের শাহতলীতে। তিনি উত্তর শাহতলী জোবাইদা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষিকা ছিলেন। তার দুই মেয়ে ও এক ছেলে সন্তান আছে।

নিহত নাজমা আক্তারের বড় মেয়ে ফারহানা ইসলাম জেরিন জানান, তার মা নাজমা বেগম প্রতিদিনের ন্যায় শহরের বিষ্ণুদী রোডের বাসা থেকে সোমবার সকালে অটোরিকশা যোগে বিদ্যালয়ে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে ঘোষের হাট বাজারে বেপরোয়া গতির বোগদাদ বাসের ধাক্কায় সিএনজিটি দুর্ঘটনার কবলে পড়ে। এতে ঘটনাস্থলেই নাজমা বেগম নিহত হন। এ ঘটনায় অটোরিকশা চালকও আহত হয়েছেন।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নয়ন চন্দ্র দাস বলেন, সকালে তিনি বাসা থেকে স্কুলের উদ্দেশ্যে চাঁদপুর থেকে সিএনজিচালিত অটোরিকশায় রওয়ানা হন। ঘটনাস্থলে পৌঁছালে বোগদাদ পরিবহনের একটি বাস অটোরিকশার পেছনে ধাক্কা দেয়। এতে অটোরিকশাটি উল্টে গিয়ে দুমড়ে-মুচড়ে যায় এবং নাজমা বেগম মারাত্মকভাবে আহত হন। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক নাজমা বেগমকে মৃত ঘোষণা করেন।

চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ আবদুর রশিদ বলেন, ঘটনাস্থল থেকে বোগদাদ পরিবহনের বাস ও অটোরিকশাটি পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। জড়িত কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। প্রধান শিক্ষক নয়ন চন্দ্র দাস বাদী হয়ে মামলা করেছেন। স্বজনদের আবেদনের প্রেক্ষিতে ময়নাতদন্ত ছাড়াই হস্তান্তর করা হয়েছে।